You are currently viewing উৎসব আয়োজনে সুস্বাদু বাসন্তী পোলাও

উৎসব আয়োজনে সুস্বাদু বাসন্তী পোলাও

চলে এলাম খুব সহজ একটি মিষ্টি পদ নিয়ে। বাসন্তী পোলাও, শুনেই যেন জিভে জল চলে আসে।আমিষ হোক বা নিরামিষ  আয়োজন দুটোর সাথেই এই বাসন্তী  পোলাও ভীষনভাবে মানিয়ে যায়।আবার পৌরণিক কাহিনীতে শোনা যায়,এই বাসন্তী পোলাও পদটি নাকি মা লক্ষ্ণীরও খুব পছন্দের। এই রেসিপিটা মূলত মোটামুটি ৫/৬ জনের জন্য আয়োজন । সম্পূর্ণ রান্নার সময় লাগতে পারে প্রায় দেড় ঘন্টা মত। চলুন আর সেরী না করে রেসিপি টা শুরু করি।

 বাসন্তী পোলাও রান্নার উপকরণঃ

ক্রমিক নংউপকরনপরিমান
বাসমতী চাল৬০০ গ্রাম
লবণপরিমানমত
তেজপাতা৪-৫ টি
ছোট এলাচ৮-১০ টি
চার ইঞ্চিমাপের দারচিনির টুকরো৩ টি
লবঙ্গ৮-১০ টি
জয়িত্রী৪-৫ টি
হলুদগুঁড়ো২০ গ্রাম
তেল১-২ কাপ
১০ঘি১০০ গ্রাম
১১কাজুবাদাম১০০ গ্রাম
১২কিশমিশ১৫০ গ্রাম
১৩আমান্ড৫০ গ্রাম
১৪পেস্তা ২০ গ্রাম
১৫চিনি১০০ গ্রাম

বলে রাখি বাসন্তী পোলাও  তে বাদাম এর পরিমাণ একটু বেশী হলে, তার স্বাদ আরো অতুলনীয়  লাগে।

বাসন্তী পোলাও

 বাসন্তী পোলাও প্রস্তুত প্রণালিঃ

প্রথমেই সব গুলো গোটা মসলার অর্ধেকটা   দিয়ে ৪ কাপ জল ফুটিয়ে নিতে হবে। এ পর্যায়  চালটা  একটা পাত্রে ১০ মিনিট ভিজিয়ে  রাখুন।এরপরে খুব ভালো করে ঠান্ডা জলে ধুতে হবে। ঘষবেন না, কেবল ধুয়ে রাখুন।
একটা বড়ো মেলানো থালার মধ্যে চালটা ছড়িয়ে দিন। এখন ১৫/২০ মিনিট অপেক্ষা  করুন। এই সময়ের মধ্যে চালটা শুকনো হয়ে যাবে। মিনিট বিশেক  পর শুকনো চালের সঙ্গে ঘি, হলুদ, ও আন্দাজ মত লবণ মাখিয়ে নিন। ভালো করে মিশিয়ে নিন আলতো হাতে।সাবধানে কাজটি করবেন।যাতে করে চাল ভেঙ্গে না যায়। চাল ভেঙে গেলে কিন্তু  পোলাও ঝরঝরে হবে না। তাই খুবই সাবধানে কাজ করুন।

আরও পড়ুনঃ মটন কষা রেসিপিঃ কষা খাসীর মাংসের যাদুকরী স্বাদ।

এবার ম্যারিনেট করা চালটা ঘণ্টাখানেকের জন্য রেখে দিন। এক ঘণ্টা পর একটা কড়ায় ২টেবিলচামচ ঘি গরম করুন। গরম হয়ে গেলে কাজু, আর কিশমিশ দিয়ে ভালো করে ভাজুন। সোনালি রং ধরলে কাজু-কিশমিশ ঘি থেকে ছেঁকে নামিয়ে নিন। আমান্ড ও পেস্তা ভাজবেন না।কুচিয়ে কেটে জলে ভিজিয়ে রাখুন। ওই ঘি এর  মধ্যেই তেজপাতা আর গোটা  গরমমশলা দিন ফোড়ন হিসেবে।একটু নাড়াচাড়া করে নিন। ফোড়ন থেকে সুগন্ধ বেরোলে চালটা দিয়ে ভালো করে ভাজতে আরম্ভ করুন।চাল কড়াই থেকে ছেড়ে এলে তাতে প্রথমেই জলে ভিজিয়ে রাখা বাদাম গুলো ছেকে তুলে দিন। তার পর বাদাম, কিশমিশ, চিনি আর ফুটানো  জলটা দিয়ে আঁচ কমিয়ে দিন।

একেবারে এয়ারটাইট একটা ঢাকা দিয়ে রাখতে হবে অন্তত পক্ষে ১৫ মিনিট। তার মধ্যেই জল শুকিয়ে ঝরঝরে পোলাও রান্না হয়ে যাওয়ার কথা। নামানোর আগে আরও এক টেবিলচামচ ঘি ছড়িয়ে নিয়ে নামান। এরপর একটু ঠান্ডা করে পরিবেশন করতে পারবেন।

*আরও মজাদার রেসিপি ও রান্নার আইডিয়া পেতে আমাদেরকে ফেসবুকইউটিউবটুইটারপিন্টারেস্ট ও ইন্সটাগ্রামে ফলো করতে পারেন।

Leave a Reply